মেনু নির্বাচন করুন
Text size A A A
Color C C C C
পাতা

খেলাধুলা ও বিনোদন

মাদারীপুর জেলা খেলাধূলার জন্য একটি ঐতিহ্যবাহী জেলা। ১৯৭১ সালে মহান মুক্তিযুদ্ধকে সংগঠিত করার জন্য স্বাধীন বাংলা ফুটবল দলের কৃতি খেলোয়াড় জনাব মজিবর রহমান হাওলাদার এই জেলার সমত্মান। বাংলাদেশের ‘‘টেনিস কন্যা’’ নামে খ্যাত ‘‘বৈশাখী’ বাব বার জাতীয় টেনিস প্রতিযোগিতায় চ্যাম্পিয়ন হয়েছে। মহিলা হ্যান্ডবলে কয়েকবার আঞ্চলিক ও বিভাগীয় চ্যাম্পিয়ন হওয়ার গৌরব অর্জনকারী মাদারীপুর জেলা। সর্বোপরী মাদারীপুরের সমত্মান সিদ্দিক ২০০০ সালে ভারতের মুর্শিদাবাদে অনুষ্ঠিত দূরপাল্লার সাঁতারে প্রথম স্থান অধিকার করেছে। এছাড়াও ১৯৯২ সালে একই সাঁতারু জাতীয় যুব সাঁতারে ৪টি জাতীয় নতুন রেকর্ডসহ মোট ৭ টি স্বর্ণপদক লাভ করেন।

 

* উল্লেখ্যযোগ্য খেলার নাম ও বিবরণ: ফুটবল, মহিলা ফুটবল, ক্রিকেট, হ্যান্ডবল (পুরুষ ও মহিলা), ব্যাডমিন্টন, ভলিবল, কাবাডি, এ্যাথলেটিকস্, টেনিস, টেবিল টেনিস, দাব, সাঁতার সহ স্থানীয় হাডুডু।

 

* খেলাধূলার স্থান : জেলা সদরের ষ্টেডিয়াম, সরকারী নাজিমউদ্দিন বিশ্ববিদ্যালয় কলেজ মাঠ, চরমুগরিয়া কলেজ ও চরমুগরিয়া মার্চেন্ট উচ্চ বিদ্যালয় মাঠ, কুলপদ্দি মডেল ক্লাব মাঠ, পুলিশ লাইনস মাঠ, এছাড়াও সদর ব্যতীত অন্য ৩ টি উপজেলায় শিক্ষা প্রতিষ্ঠান সংলগ্ন বেশ কয়েকটি খেলা উপযোগী মাঠ আছে।

 

* বাৎসরিক যে সকল খেলা অনুষ্ঠিত হয়:

ফুটবল-কিশোর, জেলা প্রশাসক টুর্ণামেন্ট, ফুটবল লীগ।

ক্রিকেট- অনুর্ধ ১৪, ১৬, ১৮ ক্রিকেট, ২০-২০ ক্রিকেট।

হ্যান্ডবল পুরুষ ও মহিলা, ব্যাডমিন্টন টুর্ণামেন্ট কিশোর, মহিলা ও পুরুষ। ভলিবল পুরুষ ও মহিলা, এ্যাথলেটিকস্, বয়স ভিত্তিক সাঁতার, টেনিস, টেবিল টেনিস, দাবা।

 

* ফুটবল, ক্রিকেট, ব্যাডমিন্টন, এ্যাথলেটিকস্, ভলিবল, সাঁতার, হাডুডু, স্বাধীনতার পূর্ব থেকেই এ অঞ্চলে প্রচলিত চিল। স্বাধীনতাত্তর টেনিস ও হ্যান্ডবল খেলা প্রচলন হয়েছে।

সংযুক্তি

Kheladhula_O_Binodon.pdf Kheladhula_O_Binodon.pdf